কালোজাদু-পৃষ্ঠা-৩১১+৩১২

0Shares

আর ০৭ পুরুষ পার হলে ওটা প্রাচীন লোককথা বা পুরাণ বা মিথ , ইলিয়ড বা মহাভারত  হয়ে যাবে ।সামান্য আজ থেকে ১৫০০ বছর হতে পারেনি আমাদের বিশ্বনবী হযরত মূহাম্মাদ (সাঃ)এর জামানা ছিল ।নবীর আমলের সব ইতিহাস ও নমুনা সংরক্ষিত থাকার পর ও বিশ্বাস এবং অবিশ্বাসের দ্বন্দ্ব চলে আসছে যুগ যুগ ধরে ।আবার ধরুন আমাদের ১৯৭১ সালের মহান মুক্তিযুদ্ধের কথা ।মাত্র ৪৭ বছর আগে সংঘটিত হওয়ার পর ও এবং পক্ষে-বিপক্ষে যথেষ্ট প্রমাণ থাকা সত্ত্বেও  আমাদের মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে বিতর্কের কোন শেষ নেই ।শেখ মুজিবুর রহমান এর ০৭ ই মার্চের ঐতিহাসিক  ভাষণের ভিডিও থাকা সত্ত্বেও তিনি স্বাধীনতার ঘোষক কিনা এ নিয়ে বিতর্কের জন্য বহুদলে বিভক্তি আছে , আবার মেজর জিয়া বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পক্ষে স্বাধীনতার ঘোষণা পাঠ করেন এবং জেড ফোর্স এর নেতৃত্ব দেন সক্রিয় ভাবে মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন এবং বীর উত্তম উপাধিতে ভূষিত হন ।তারপরেও দেখুন পূরো প্রমাণ সহ ইতিহাস থাকা সত্ত্বেও মুক্তিযুদ্ধে কার কি অবদান , প্রকৃত এবং ভূয়া মুক্তিযোদ্ধা বিতর্কের শেষ নেই , লেগেই আছে ।৪৭ বছরেও আমরা জাতি হিসেবে স্থির ইতিহাসে আসতে পারলাম না ।তাহলে বুঝুন ৪৭ বছরে যদি সঠিক ইতিহাস হারিয়ে যায় সেখানে দু হাজার বছর , পাঁচ হাজার বছর , ১০ হাজার বছর আগের প্রকৃত ইতিহাস কে বিভিন্ন বিজ্ঞানীরা আর পণ্ডিতেরা ইচ্ছা মত বদল করে দিতে পারে , বেশির ভাগ ক্ষেত্রে কালের আবর্তে অত পুরাতন ইতিহাসের কোন গুরুত্ত থাকেনা , গুরুত্তহীন হতে হতে একসময় সেই সত্যি ইতিহাস মিথ এ পরিনত হয় ।আর সবাই তো সবকিছু এক রকম নজর বা দৃষ্টিকোণ থেকে দেখেনা ।আমরা যতই আন্দাজ অনুমান করি আর ফসিল নিয়ে গবেষনা করে বলি না কেন হতে পারে তো অন্য কোন কিছু ।মাটির নিচে তো কত কিছুই পাওয়া যায় তাই বলে বলে দেওয়া যায়না যে মানুষ কে আজকের মানুষ হতে ১০ লক্ষ বছর ধরে বানর থেকে মানুষ হতে হবে , বা হোমো হাবিলিস হয়ে থাকতে হবে,

(৩১১)

         এই তত্ত্ব যে আজকের মানুষ হবার জন্য ব্যাপক জরুরি এটা কারা বা কাদের জন্য আজকে সমাজে প্রচলিত হল কে জানে আর সেটাই তো ব্যাপক ভাবে আমরা গিলছি এই তত্ত্ব ।হা ডারউইন সাহেবের দেওয়া বিবর্তনবাদের তত্ত্ব এ ক্ষেত্রে কিছুটা দায়ী ।কিন্তু সেখানেও স্পষ্ট ভাবে মানুষ বানর থেকে তৈরি এটা বলা হয়নি  । বলা হয়েছে বানর জাতীয় মানে প্রাইমেট জাতীয় মানে শিম্পাঞ্জী , গরিলা ,বানর এসবের থেকে মানুষের সাদৃশ্য আছে ।কিন্তু তাই বলে বানর থেকেই মানুষ হতে হবে এটা বিশ্বাস করতে হবে এমন কথা নেই । বিজ্ঞান যা বলে সত্য বললেও আজ যা সত্য আছে বিজ্ঞানে ২০ বছর পর সেই তত্ত্ব মিথ্যা হবেনা এটা বলা যাবেনা ।আপনি যত গবেষণা করেন না কেন আগের ব্যাপার নিয়ে সেটা হয়ে যাই সাদা কাগজে ইচ্ছা মত কিছু আকার মত ,সাদা কাগজে কিছু আপনি আকলেন সেখানে যা আঁকলেন সেটাই মানুষ দেখবে এবং বিশ্বাস করবে যে ওই কাগজটাতে ওই ছবিটাই ছিল এবং ওই কাগজটা ওই ছবির জন্য উপযুক্ত ছিল ।ধরুন একজন লোক  খুন করে খুনের কোন প্রমান রেখে গেলোনা ।এবার পুলিশ এসে তদন্ত করবে অন্ধকারে সুচ খোজার মত  ব্যাপার হিসাবে । এখানে তদন্ত করতে গিয়ে দেখা গেলো খুনি কোন প্রমান রেখে যাইনি , অনুসন্ধানেও দেখা গেলো এই লোকটার মোবাইল কল লিস্ট এবং বাক্তি জীবন কোথাও কোন ঝগড়া বা চুক্তির নমুনা নেই , এখন লাশটা রাস্তার পাশে কোন ঝোপ এ  খুনি রেখে গেলো , এরপর একটা লোক (যে লোকটা খুনি নয় এবং এ খুনের ব্যাপারে সে কিছু জানেনা) রাতের অন্ধকারে ঝোপের ভিতরে পড়ে থাকা লাশটা খেয়াল করলোনা । সে প্রসাব করার জন্য ওই ঝোপ এ বসলো , এ সময় তার পকেট থেকে তার আইডি কার্ড পড়ে গেলো বা তার একটা সনাক্ত করন কিছু পড়ে গেলো । এটার সুত্র ধরে পুলিশ দেখা গেলো নিরাপরাধ লোকটিকে নিশ্চিত প্রমান সহ ধরে নিয়ে আসলো , ফলে তার আর কিছু বলার থাকলোনা , অযথা জেলে বা ফাঁসীতে যেতে হতে পারে । এরকম যে কেস হয়না তা নয় ।

(৩১২)

পরবর্তী পৃষ্ঠা দেখুন

0Shares

Facebook Comments

error: Content is protected !!